প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয় গ্রেফতার এড়াতে উধাও এমপি হাজী সেলিম!

গ্রেফতার এড়াতে উধাও এমপি হাজী সেলিম!

108
গ্রেফতার এড়াতে উধাও এমপি হাজী সেলিম!

হাজী সেলিম কোথায়? রাজনৈতিক অঙ্গনে এখন এটি একটি বড় প্রশ্ন। লালবাগ বাসী সর্বশেষ হাজী সেলিমকে দেখেছেন রোববার সন্ধ্যার পর। এরপর তিনি লোক চক্ষুর অন্তরালে। আওয়ামী লীগের একজন প্রভাবশালী নেতা জানিয়েছেন, রোববার রাতে হাজী সেলিম সস্ত্রীক তার বাসায় যান। এসময় হাজী সেলিমের স্ত্রী ঐ নেতাকে ঘটনা মিটমাট করার অনুরোধ করেন। হাজী সেলিমের ফোন দিয়ে তার ব্যক্তিগত সহকারী আওয়ামী লীগের একাধিক নেতার সঙ্গেও যোগাযোগ করেন।
জানা গেছে,আওয়ামী লীগের ঐ প্রভাবশালী নেতা হাজী সেলিমকে জানিয়ে দেন এব্যাপারে তার কিছু করণীয় নেই। সোমবার ছিলো শারদীয় দূর্গা পুজা উপলক্ষ্যে সরকারী ছুটির দিন। ঐ দিন ভোরে নৌবাহিনীর আক্রান্ত অফিসার বাদী হয়ে ধানমন্ডী থানায় মামলা দায়ের করেন। এরপর র‌্যাব অভিযান চালায় বড় কাটরায় ‘চান সরদার দাদাবাড়ী’তে। এখানেই হাজী সেলিম স্বপরিবারে থাকেন। কিন্তু র‌্যাবের সাত ঘন্টা অভিযানের সময় হাজী সেলিমকে সেখানে পাওয়া যায়নি। ইরফান সেলিমকে গ্রেপ্তারের পরও হাজী সেলিম বের হননি। মূলত: রোববার রাতের পর থেকেই হাজী সেলিম নিখোঁজ।

লালবাগে হাজী সেলিমের ঘনিষ্ঠ একজন আওয়ামী লীগ কর্মী বলেছেন, এই এলাকায় হাজী সেলিমের আরো তিনটি বাড়ী আছে। এখানেই কোন একটিতে তিনি হয়তো আছেন।’ স্থানীয় এলাকাবাসীরা জানিয়েছেন, করোনা সংক্রমনের পর থেকেই হাজী সেলিম খুব একটা বের হন না। তবে এই ঘটনার কয়েকদিন আগেও তিনি অল্প সময়ের জন্য তার অফিস মদিনা আশিক টাওয়ারে যেতেন।
জানা গেছে, আগে থেকেই ব্যক্তিগত নিরাপত্তার জন্য একেক দিন একেক বাড়ীতে থাকতেন হাজী সেলিম। তবে আওয়ামী লীগের স্থানীয় লোকজন নিশ্চিত করেছেন যে, ‘তিনি লালবাগ এলাকাতেই আছেন। যেহেতু এই ঘটনার পর সারাদেশে তোলপাড় হয়েছে। স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী ঘটনায় প্রচণ্ড ক্ষুব্ধ, তাই হাজী সেলিম এখন চুপচাপ আছেন। এই ঘটনার ঢেউ তার গায়েও লাগতে পারে, এই আশংকায় তিনি গা ঢাকা দিয়ে থাকতে পারেন বলে অনেকে মনে করছেন। যেকোন সমস্যায় হুট করে দেশ ত্যাগ হাজী সেলিমের পুরনো অভ্যাস। এই ঘটনার পর, হাজী সেলিম আবার দেশত্যাগ করলেন কিনা তা নিয়েও গুঞ্জন আছে। তবে, একাধিক সূত্র জানিয়েছে, হাজী সেলিম এখনও দেশত্যাগ করেননি।
একাধিক সূত্র বলছে, ইরফান সেলিমের অত্যাচার নির্যাতন এবং সন্ত্রাসের তদন্ত এক সময় হাজী সেলিমের বিরুদ্ধেও তদন্তের ভিত্তি হতে পারে। এজন্য হাজী সেলিমের দেশ ত্যাগে এখনই বিধি নিষেধ আরোপ প্রয়োজন বলে অনেকে মনে করেন।