প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয় *ক’লিজা ঠাণ্ডা হতো না’স্তিকদের টু’করো করতে পারলে: হেফাজতি আউয়াল*

*ক’লিজা ঠাণ্ডা হতো না’স্তিকদের টু’করো করতে পারলে: হেফাজতি আউয়াল*

54
*নাস্তিকদের টুকরো করতে পারলে কলিজা ঠাণ্ডা হতো: হেফাজতি আউয়াল*

*নারায়ণগঞ্জ জেলা হেফাজতে ইসলামের আমীর ও ডিআইটি রেলওয়ে কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতিব মাওলানা আব্দুল আউয়াল বলেছেন, না’স্তিকেরা ঘরে বসে বসে আমাদের আল্লাহকে গালি দেয়, নবীকে গালি দেয়, মুসলিমদের গালি দেয়, আমাদের হজ্জকে গালি দেয়। মুশকিল হলো আমরা এখন তাদের কাছে যেতে পারছি না। তাদের কাছে যেতে পারলে তাদেরকে টুকরো টুকরো করে মুসলমানদের কলিজা ঠাণ্ডা করতাম। ২৪ জুলাই শুক্রবার জুমআর নামাজের খুতবার বয়ানে তিনি এসব কথা বলেন।*

*আব্দুল আউয়াল বলেন, আমাদের সরকার বাহাদুর নিশ্চয়ই মুমিন মুসলিম দাবীদার। উনাদের সামনে তাদের নবীকে গালি দেয় উনারা কেমন করে সহ্য করে আমাদের বুঝে আসে না। সমস্ত ঈমানদের ধৃষ্টতা দেখিয়ে তারা জমিনের মধ্যে বসবাস করছে আর সরকার তাদের শূলিতে চড়িয়ে সারাবিশ্বের ঈমানদারদের কলিজা ঠাণ্ডা করে দেয় না। বড় দুঃখের বিষয়।*

*তিনি আরো বলেন, আসাদ নূর নামে এক নাস্তিক বলেছে, আল্লাহ বলে কোনো শক্তি নেই। আল্লাহ বলে কেউ থাকলে মাথা মোটা মোল্লাদের দোয়ায় কেন করোনা যায় না। এই কুলাঙ্গারের বাচ্চা এই নাফরমানের বাচ্চা আমাদের নবী মোহাম্মদকে নিয়ে গালি দিয়েছে। তুই অন্য কোথাও চলে যা। তুই কেন ডিস্টার্ব করছস। তোর বিজ্ঞান এসব আবিস্কার করছে। আমরা তো বিজ্ঞান অস্বীকার করি না। আমরা শতভাগ বিজ্ঞানের আবিস্কার স্বীকার করি। বিজ্ঞানের আবিস্কৃত জিনিস ব্যবহার করি।*

*আব্দুল আউয়াল বলেন, নাস্তিকরা বিভিন্ন দেশে এখন আরামে আছে। আগে ছিল ইমরান সরকার। কুলাঙ্গার ছিল তসলিমা নাসরিন। হুমায়ুন আজাদ ছিল আরেক কুলাঙ্গার। এ ধরনের কুলাঙ্গাররা একটার পর একটা আমাদের মুসলনানদের গালি দিচ্ছে। আগে জনসম্মুখে আসতে পারতো না। ফেসবুক আসার পর এখন ঘরে বসে বসে আলোচনা শুরু করছে। আল্লাহপাক যখন সাড়াসি অভিযান দিয়ে ধরবে তখন ছাড়া পাবে না।*