প্রচ্ছদ খেলা *রোনালদিনহোকে নিজ খরচে কা’রামুক্ত করছেন মেসি!*

*রোনালদিনহোকে নিজ খরচে কা’রামুক্ত করছেন মেসি!*

38
*রোনালদিনহোকে নিজ খরচে কারামুক্ত করছেন মেসি!*

*ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার ফুটবল ভক্তদের মধ্যে সম্পর্কটা বরাবরই সাপে-নেউলে। বিষয়টা এমন যে, যিনি আর্জেন্টিনার ভক্ত, তাকে ব্রাজিলবিরোধী হতেই হবে। ব্রাজিলের পাড় সমর্থকেরও প্রধান বৈশিষ্ট্য, তিনি আর্জেন্টিনাবিরোধী। কিন্তু দুই দেশের ফুটবলারদের মধ্যে সম্পর্কটা কিন্তু দারুণ মধুর। মেসি আর রোনালদিনহোকেই দেখুন। রোনালদিনহোকে বিপদ থেকে উদ্ধারে ঝাঁপিয়ে পড়লেন মেসি!*

*সম্প্রতি প্যারাগুয়ের এক ক্যাসিনো মালিকের আমন্ত্রণে সেখানে গিয়ে বড় বিপদে পড়েছেন রোনালদিনহো। পাসপোর্ট জাল হওয়ায় জেল হয়েছে ব্রাজিলিয়ান এই তারকা ও তার ভাইয়ের। জেলেই সময় কাটছে রোনালদিনহোর। এই খবর শুনে আর বসে থাকতে পারলেন না মেসি। সঙ্গে সঙ্গেই রোনালদিনহোর দিকে বাড়িয়ে দিলেন সাহায্যের হাত। রোনালদিনহোকে জেল থেকে ছাড়াতে নিজের পকেট থেকে ৪ মিলিয়ন ইউরোর মতো খরচ করছেন তিনি।*

*`নাইন্টিমিনিট, টিম টক`-এর মতো কয়েকটি গণমাধ্যম বলছে, প্যারাগুয়ের আইন অনুযায়ী, পাসপোর্ট জালিয়াতির কারণে ছয় মাসের জেল হতে পারে রোনালদিনহোর। তার আগেই যেন ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি জামিন পান, সেজন্য মেসি চারজন আইনজীবী নিয়োগ করেছেন।*
*একটা সময় বার্সেলোনায় কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে খেলেছেন মেসি আর রোনালদিনহো। রোনালদিনহো যখন বিশ্বের অন্যতম সেরা ফুটবলার হিসেবে মাঠ মাতাচ্ছেন, মেসি তখন উদীয়মান তারকা। ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তির খেলোয়াড়ি জীবন শেষ, মেসি এখনও মাঠ মাতিয়ে যাচ্ছেন। আগের মতো হয়তো সেভাবে দেখা সাক্ষাত হয় না, কিন্তু মনের টানটা যে এতটুকু কমেনি, সেটাই প্রমাণ করলেন মেসি।*

*নিজেকে নিয়ে গুজবের সমাপ্তি করলেন দিবালা*
*ইউরোপের প্রথম সারির ক্লাবগুলোর মধ্যে প্রথম ফুটবলার হিসেবে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন জুভেন্টাসের ডিফেন্ডার দানিয়েল রুগানি। এরপরেই ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোসহ জুভেন্টাসের সকল খেলোয়াড়দের নিবিড় পর্যবেক্ষণে (আইসোলেশন) নেয় ক্লাব কর্তিপক্ষ। এরপর গতকাল রাত থেকে একটি খবর ঘুরে বেড়ায় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আর্জেন্টাইন তারকা পাওলো দিবালা!*

*খেলোয়াড়দের ভেনেজুয়েলার একটি সংবাদমাধ্যমের সূত্র ধরে সাড়া বিশ্বে ছড়িয়ে পড়ে। অন্যান্য আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমেও তা ফলাও করে এসেছে। সামাজিক মাধ্যমে তো রীতিমতো ভাইরাল। আর গুঞ্জন দিবালার চোখও এড়ায়নি। অনেকেই তাঁর কাছ থেকে সঠিক সংবাদ জানতে চেয়েছেন। সবার কৌতূহল মেটাতে তাই সামাজিক মাধ্যমে তিনি নিজেই দিলেন সংবাদটা। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হননি, জানালেন জুভেন্টাসের এই স্ট্রাইকার।*

*সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে এক টুইটে শুক্রবার (১৩ মার্চ) দিবালা লিখেছেন, ‘হ্যালো সবাই, আমি সবাইকে নিশ্চিত করে জানাতে চাই, আমি ভালো আছি এবং সেচ্ছাসেবীদের অধীনে আইসোলেশনে আছি। আমাকে মেসেজ দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ। আমি আশা করছি, আপনারাও ভালো আছেন।’ এরপর দুই হাত জড়ো করে অনুরোধ করার ভঙ্গির ইমো দিয়ে তিনি বলেছেন, কোনো ধরনের ভুল সংবাদ প্রকাশ না করতে।*
*উল্লেখ্য, বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস ইতালিতে ভয়াবহ পরিস্থিতি তৈরি করেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ইতালিতে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে নতুন করে আরও ১৮৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশটিতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে এক হাজার ১৬ জনে দাঁড়িয়েছে।*

*করোনা সঙ্কট: ক্রীড়াঙ্গনের ভবিষ্যত কি?*
*এক ভাইরাসে স্থবির পুরো বিশ্ব। প্রাণঘাতী সেই ভাইরাসের নাম করোনাভাইরাস। চীন থেকে সৃষ্ট এই ভাইরাসে ইতিমধ্যে প্রাণ হারিয়েছে পাঁচ হাজারের বেশি মানুষ। আক্রান্ত এক লাখেরও বেশি। ধীরে ধীরে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাচ্ছে প্রতিটি দেশ, শঙ্কা বাড়ছে। আর এই অদ্ভুত রোগের উপশম না আবিষ্কার হলেও, এর প্রভাব পড়ছে প্রতিটি ক্ষেত্রে। অর্থনৈতিক দিকে যেমন এর প্রভাব ভয়াবহ, ক্রীড়াঙ্গনে এর বিস্তার অসহনীয়।*

*আস্তে আস্থে বন্ধ হয়ে যাচ্ছে সকল ক্রীড়া প্রতিযোগিতা। ক্রিকেট কিংবা ফুটবল, বাস্কেটবল বা ফর্মুলা ওয়ান- সব স্থগিত। কবে আবার ফিরবে তাও অনিশ্চিত। সম্ভবত ক্রীড়াঙ্গনেই এই ভাইরাসের প্রভাব সবথেকে বেশি। ইতিমধ্যে বন্ধ হয়েছে জনপ্রিয় সব ক্রীড়া আসর। কবে নাগাদ শুরু হবে তাও জানেনা কেউ। এখন পর্যন্ত করোনার প্রভাবে স্থগিত হয়েছে যে যে ক্রীড়া প্রতিযোগিতা-*

*স্থগিত মুজিব বর্ষের দুইটি টি-টোয়েন্টি: ‘২১ ও ২২ তারিখ যে খেলাগুলো হচ্ছে সেটা নিয়েও সমস্যা হচ্ছে। সবাই এখানে এসে খেলতে পারবে সেটা নিয়ে কোনো কথা নেই। আবার খেলে যে যেতে পারবে সেই নিশ্চয়তা নেই। অনেকগুলো বাধা আসছে অনেক জায়গা থেকে। এজন্য সিদ্ধান্ত নিয়েছি দুটা প্রোগ্রামই ‘রেফার্ড’। সামনে মাসখানেক পরে আমরা সময়মতো পরিস্থিতি বুঝে আমরা আয়োজন করবো। আপাতত স্থগিত।’- বিসিবি সভাপতি।*

*বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের ম্যাচ স্থগিত: করোনা ভাইরাস সংক্রমণ ঠেকাতে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ ও এশিয়া কাপ বাছাইয়ে ঘরের মাঠের বাকি ম্যাচগুলো স্থগিত করেছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন। ফিফা ও এএফসির নির্দেশনা অনুযায়ী নেওয়া হয়েছ এই সিদ্ধান্ত। এএফসির বিবৃতিতে বলা হয়েছে মার্চ থেকে জুন পর্যন্ত বিশ্বকাপ ও এশিয়া কাপের যুগ্ম বাছাইপর্বের সবগুলো ম্যাচ স্থগিত করা হয়েছে। পরবর্তীতে পরিস্থিতি বিবচেনা করে নতুন সময়সূচী নির্ধারণ করা হবে।*

*৩ এপ্রিল পর্যন্ত স্থগিত প্রিমিয়ার লিগ: করোনা ভাইরাসের কারণে ৩ এপ্রিল পর্যন্ত স্থগিত করা হয়েছে প্রিমিয়ার লিগ। শুক্রবার প্রিমিয়ার লিগের স্টেকহোল্ডারদের এক বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। গতকাল বৃহস্পতিবার প্রিমিয়ার লিগ চালু রাখার ঘোষণা দিলেও এক দিনের ব্যবধানেই সেই সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসল প্রিমিয়ার লিগ। মূলত শুক্রবার আর্সেনাল ম্যানেজার মিকেল আর্টেটা করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পরই লিগ বন্ধের সিদ্ধান্তে পৌঁছেছে তারা।*

*চ্যাম্পিয়নস লিগ এবং ইউরোপা লিগ স্থগিত: চ্যাম্পিয়নস লিগ এবং ইউরোপা লিগের আগামী সপ্তাহের সব ম্যাচ স্থগিত করেছে ইউয়েফা। চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ ষোলোর দ্বিতীয় লেগের বাকি ৪ টি ম্যাচ ১৭ এবং ১৮ মার্চ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও তা আপাতত পিছিয়ে গেল।*
*একইভাবে ইউরোপা লিগের শেষ ষোলোর দ্বিতীয় লেগের সব ম্যাচও স্থগিত করা হয়েছে। এছাড়া ইউয়েফা ইয়ুথ লিগের কোয়ার্টার ফাইনালের ম্যাচগুলোও পিছিয়ে গিয়েছে এই সিদ্ধান্তে। আগামী ২০ মার্চ চ্যাম্পিয়নস লিগ এবং ইউরোপা লিগের কোয়ার্টার ফাইনালের ড্র হওয়ার কথা, তবে ম্যাচ স্থগিত হওয়ায় সেটিও স্বাভাবিকভাবেই পিছিয়ে গেছে।*

*পিছিয়ে গেল আইপিএল: ১৫ এপ্রিল, ২০২০ পর্যন্ত পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ, আইপিএলকে। ২৯ মার্চ শুরু হওয়ার কথা ছিল এটি। তবে সরকারের বিভিন্ন পর্যায় থেকে পরামর্শ পাওয়ার পর বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলি এবং সেক্রেটারি জয় শাহর সঙ্গে আইপিএলের শীর্ষ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের বৈঠকের পর নেওয়া হয়েছে এমন সিদ্ধান্ত।*

*এক বিবৃতিতে বিসিসিআই বলেছে, ‘বিসিসিআই এর অংশিদার এবং সব মিলিয়ে জনগণকে নিয়ে চিন্তিত এবং সংবেদনশীল। সমর্থক থেকে শুরু আইপিএলের সঙ্গে সম্পর্কিত যারা আছেন, সবার জন্য নিরাপদ এক ক্রিকেট অভিজ্ঞতার জন্য আমরা সব প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করব। বিসিসিআই এ ব্যাপারে ভারতের সঙ্গে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকারের সঙ্গে কাজ করবে।’*

*হচ্ছে না ফর্মুলা ওয়ান: অস্ট্রেলিয়া গ্রাঁ প্রিঁ এর পর স্থগিত করা হয়েছে বাহরাইন ও ভিয়েতনাম সার্কিটের গাঁ প্রিঁ-ও। মার্চের ২০-২২ এবং এপ্রিলের ৩-৫ তারিখে যথাক্রমে হওয়ার কথা ছিল এই দুটি রেস। ফর্মুলা ওয়ান এবং এফআই-এর আশা, ইউরোপের মের শেষদিক থেকে আবারও চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু করতে পারবেন তারা। তবে সাম্প্রতিক সময়ে ইউরোপে কোভিড-১৯ এর দ্রুত ক্রমবর্ধমান হারের কারণে তারা নিয়মিত পর্যালোচনার মধ্যে রাখবেন পরিস্থিতি।*