প্রচ্ছদ রাজনীতি *সিঙ্গাপুরে কেনো ফখরুল-কাদের গোপন বৈঠক?*

*সিঙ্গাপুরে কেনো ফখরুল-কাদের গোপন বৈঠক?*

344
সিঙ্গাপুরে কেনো ফখরুল-কাদের গোপন বৈঠক?

*বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সিঙ্গাপুরে গেছেন। চিকিৎসার জন্য তিনি সেখানে গেছেন বলে জানিয়েছেন। মির্জা ফখরুলের প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই সিঙ্গাপুর গেছেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জি এম কাদের। একাধিক দায়িত্বশীল সূত্র নিশ্চিত করেছে যে, সিঙ্গাপুরে এই দুই নেতার মধ্যে কয়েক দফা কথা হয়েছে।*

*লন্ডনে পলাতক বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক জিয়ার বেশকিছু ব্যাবসা রয়েছে সিঙ্গাপুরে। তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু এবং বাংলাদেশে একটি রেডিও স্টেশনের অন্যতম মালিক সেই ব্যবসাগুলো দেখভাল করেন। প্রত্যেকবার মির্জা ফখরুল যখন সিঙ্গাপুরে যান তখন তারেকের বার্তাগুলো তার কাছে পৌঁছে দেন তারেকের সেই বন্ধু। বিএনপির রাজনীতির বিভিন্ন বিষয় নিয়েও তারা কথা বলেন। তারেকের সেই ব্যবসায়ী বন্ধুই এবার ফখরুল এবং কাদেরের মধ্যকার বৈঠকের মধ্যস্থতা করেছেন বলে জানা গেছে।*

*ফখরুল-কাদেরের বৈঠকে কী আলোচনা হয়েছে সে বিষয়ে নিশ্চিতভাবে কিছু জানা যায় নি। তবে একটি সূত্র বলছে, সাম্প্রতিক সময়ে সরকার বিরোধী আন্দোলন, সংসদ ও সংসদের বাইরে জোটবদ্ধ আন্দোলনের ক্ষেত্রে বিএনপি এবং জাতীয় পার্টি কীভাবে ঐক্যমত হতে পারবে সে বিষয়ে তাদের আলোচনা হয়েছে। এ ব্যাপারে তারেক জিয়াও টেলিফোনে যুক্ত হয়েছেন বলে একাধিক দায়িত্বশীল সূত্র জানিয়েছে।*

*বেঁধে দেওয়া হচ্ছে যুবলীগের বয়সসীমা*
*বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের সম্মেলনের আগে গঠনতন্ত্র সংশোধনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ছাত্রলীগের মতো যুবলীগেরও বয়সসীমা নির্ধারণের জন্য সুপারিশ করা হচ্ছে বলে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এবং যুবলীগের একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে। তবে এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের জন্য প্রধানমন্ত্রীর সম্মতির প্রয়োজন হবে।*

*বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের একাধিক নেতা মনে করছেন যে, ছাত্রলীগের মতো যুবলীগেরও বয়সসীমা থাকা উচিৎ। সেটা ৫০ থেকে ৫৫ বছরের বেশি হওয়া উচিৎ নয়। বর্তমানে যুবলীগের অধিকাংশ নেতার বয়স ৬০ থেকে ৬৫’র মধ্যে। এ বাস্তবতায় যুবলীগের নেতৃত্ব নির্বাচনের ক্ষেত্রে বয়সের বাধ্যবাধকতা থাকার প্রয়োজন আছে বলে মনে করছেন আওয়ামী লীগের অনেক নেতা। এছাড়াও যুবলীগের গঠনতন্ত্রের বিভিন্ন বিষয় সংশোধন করারও তাগিদ অনুভব করছেন তারা।*
*সাম্প্রতিক সময়ে যখন বিতর্ক আর সমালোচনা যুবলীগকে ঘিরে ধরেছে তখন এই সংগঠনটির বয়সসীমা নিয়েও প্রশ্ন উঠছে। সেই প্রশ্নের প্রেক্ষিতেই এবার যুবলীগের বয়সসীমা বেঁধে দেওয়ার চিন্তা ভাবনা চলছে আওয়ামী লীগে।*