প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয় *আব’রার হ’ত্যাকাণ্ড ভারতীয় পরি’কল্পনার অংশ: জাফরুল্লাহ*

*আব’রার হ’ত্যাকাণ্ড ভারতীয় পরি’কল্পনার অংশ: জাফরুল্লাহ*

96
*আবরার হত্যাকাণ্ড ভারতীয় পরিকল্পনার অংশ: জাফরুল্লাহ*

*বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বু’য়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে ভারতীয় পরিকল্প’নায় হ’ত্যা করা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ও অন্যতম ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।
আজ শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে আদর্শ নাগরিক আন্দোলন আয়োজিত এক বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এ মন্তব্য করেন।*
*ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, ‘আবরার হ’ত্যাকাণ্ড হঠাৎ ঘ’টে যাওয়া ঘ’টনা নয়। এটা দীর্ঘদিনের ভারতীয় পরিকল্পনার অংশ। দীর্ঘদিন ধরে তারা বাংলাদেশে এ ধরনের প্রক্রিয়া চালিয়ে যাচ্ছে।’*

*বিএনপিকে ভারতের আধিপ’ত্যের বিরু’দ্ধে কথা বলার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, ‘শুধু প্রধানমন্ত্রীর বিরু’দ্ধে নয়, বিএনপিকে পরিষ্কারভাবে ভারতীয় আধিপত্য’বাদীদের বি’রুদ্ধে কথা বলতে হবে। বাংলাদেশের ৯৯ ভাগ লোক ভারতের এই জাতীয় কার্যকলাপকে ঘৃ’ণা করে। তাদের চ’ক্রান্তকে ঘৃ’ণা করে।’*
*এ সময় ভারতের বিরুদ্ধে পরিষ্কার বক্তব্য না দিলে জনগণ রাস্তায় বিএনপির পাশে দাঁড়াবে না বলেও মন্তব্য করেন তিনি। আরও বলেন, ‘জনগণ আন্দোলনের জন্য প্রস্তুত আছে। বিএনপিকেও প্রস্তুত হতে হবে।’*
*এ সময় উপস্থিত ছিলেন আয়োজক সংগঠনের সভাপতি সাংবাদিক নেতা রুহুল আমিন গাজী, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন প্রমুখ।*

*থানার মধ্যে ওসির রাজসিক কাণ্ডে তোলপাড়!*
*শেরওয়ানি পড়ে বরের বেশে এলেন ওসি এসএম আল মামুন। এরপর কাটলেন বিশালাকারের কেক। গভীর রাত পর্যন্ত চলল মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সাথে ছিল খাওয়া-দাওয়ার বিশাল আয়োজন।*
*না, এ কোনো বিয়ের আয়োজন নয়। এ আয়োজন সিলেটের ওসমানীনগর থানায় ওসি আল মামুনের এক বছর পূর্তির! গত বৃহস্পতিবার রাতে থানার মধ্যে এমন আয়োজন নিয়ে চলছে সমালোচনার ঝড়। সিলেট রেঞ্জের ডিআইজি বলছেন, বিষয়টি তিনি দেখবেন।*

*জানা গেছে, সিলেটের ওসমানীনগর থানায় এক বছর পূর্বে ও’সি হিসেবে যোগ দেন এসএম আল মামুন। এ থানায় তার যোগদানের বছরপূর্তি উপলক্ষে গত বৃহস্পতিবার রাতে থানা পুলিশের উদ্যোগে রাজকীয় আয়োজন করা হয়। ওসি আল মামুন শেরওয়ানি পরিধান করে রীতিমতো বরের বেশে অনুষ্ঠানে যোগ দেন। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের জন্য আনা হয় শিল্পী, রাখা হয় আধুনিক সাউন্ড সিস্টেম। বছরপূর্তি উপলক্ষে বিশালাকারের একটি কেক কাটেন ওসি। এছাড়া মাছ, মাংসসহ বিভিন্ন পদের খাবার দিয়ে আয়োজন করা হয় নৈশভোজের। গভীর রাত অবধি চলা এই আয়োজন নিয়ে শুক্রবার সরগরম ছিল সিলেট। বিভিন্ন স্তরের মানুষ এ নিয়ে সমালোচনা করছেন।*
*এ ব্যাপারে ওসমানীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান চৌধুরী নাজলু বলেন, ‘ওসি সাহেবের পক্ষ থেকে তাৎক্ষণিক দাওয়াত পেয়ে সেখানে গিয়েছিলাম। দাওয়াত খেয়ে চলে আসি। ওসির বর্ষপূর্তিতে এ ধরনের অনুষ্ঠান আগে কখনো দেখিনি।’*

*ওসমানীনগর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আনা মিয়া বলেন, ‘দাওয়াত পেয়ে অনুষ্ঠানে গিয়ে দেখি ওসির বর্ষপূর্তি উপলক্ষে বর্ণাঢ্য আয়োজন করা হয়েছে। আমি দাওয়াত খেয়ে চলে আসি।’*
*এ বিষয়ে ওসমানীনগর থানার ওসি আল মামুন বলেন, ‘থানায় যোগদানের এক বছর পূর্তিতে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সকলের সহযোগিতায় অনুষ্ঠানটি সুন্দর হয়েছে।’*
*ওসমানীনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তাহমিনা আক্তার বলেন, ‘কর্মস্থলে যোগদানের বর্ষপূর্তিতে এ ধরনের অনুষ্ঠান আয়োজনের কোনো নিয়ম নেই। এ বিষয়ে আমি জ্ঞাত নই। আমাকে কেউ কিছু বলেনি।’*
*জানতে চাইলে সিলেট রেঞ্জের ডিআইজি কামরুল হাসান বলেন, ‘সিলেট রেঞ্জে যোগদানের আমারও তো প্রায় তিন বছর হয়ে গেল। কই, কখনো তো এ ধরনের অনুষ্ঠান করতে দেইনি! ওসি যোগদানের বছর পূর্তিতে ওসমানীনগর থানায় এ ধরনের আয়োজনের বিষয়ে আমি কিছু জানি না। বিষয়টি দেখবো।’*