প্রচ্ছদ রাজনীতি “বঙ্গবন্ধুর খু’নীর স্ত্রী রিটার উপর বিএনপির শরিকরা কেনো ক্ষে’পেছে”

“বঙ্গবন্ধুর খু’নীর স্ত্রী রিটার উপর বিএনপির শরিকরা কেনো ক্ষে’পেছে”

170

*এখন বিএনপিতে একীভূত হয়েছে। তার দেখানো পথে হাঁটতে বললেন বিএনপির সঙ্গে থাকা অন্য শরিক দলগুলোকেও। আর এতেই ক্ষে’পেছেন বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের শরিক কয়েকটি দলের নেতারা।
রোববার পিপলস পার্টি অব বাংলাদেশ বি’লুপ্ত করে রিটা রহমান তার দলের নেতাকর্মীদের নিয়ে বিএনপিতে একীভূত হওয়ার সি’দ্ধান্ত জানান। তিনি গণমাধ্যমে বলেন, ‘আমি মনে করি শরিক যে ক্ষুদ্র দলগুলো আছে তাদেরও বিএনপিতে একীভূত হওয়া উচিত।’

*পিপলস পার্টি অব বাংলাদেশ বিলু’প্ত করে বিএনপিতে একীভূত হওয়ার অফার কি বিএনপি থেকে দেয়া হয়েছে নাকি আপনারাই এমন সি’দ্ধান্ত নিয়েছেন? এমন প্রশ্নের জবাবে রিটা বলেন, ‘না, বিএনপি আমাদের অফার করেনি। আমরাই বিএনপিকে বলেছি, এটা আরও আগে থেকেই বলেছি, জানুয়ারি থেকেই আমরা বিএনপি মহাসচিবকে বলেছি। সেটা এখন বাস্তবায়ন হলো।’

*বিএনপিতে যোগ দিলেন, এখন দলে আপনার পদ-পদবি কী হবে, সে বিষয়ে কোনো আলো’চনা হয়েছে কি বা আপনার কোনো প্রত্যাশা রয়েছে কি না- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘না, এমন কোনো বিষয় নিয়ে আলো’চনা হয়নি, আমি কাজ করতে চাই। আমি কাজ করতে পারব, তাই যোগ দিয়েছি। দল কী করবে এটা দলের বিষয়।’

*বিএনপির শরিক ক্ষুদ্র দলগুলোকে বিএনপির সঙ্গে একীভূত হওয়ার যে আহ্বান রিটা রহমান জানিয়েছেন সে বিষয়ে ২০ দলীয় জোটের শরিক ন্যাশনাল পিপলস পার্টি (এনপিপি) চেয়ারম্যান ড. ফরিদুজ্জামান ফরহাদ বলেন,‘উনি যেটা ভালো বুঝেছেন, সেটা করেছেন, এটা ওনার আহ্বান, বিএনপি ভালো বুঝেছে ওনাকে নিয়েছে। বিএনপি আমাদের এমন আহ্বান জানায়নি এবং আমাদেরও এমন চিন্তা নেই।’

*ন্যাপ ভাসানীর চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট আজহারুল ইসলাম বলেন, ‘উনি গেছেন, ওনাকে ধন্যবাদ। কিন্তু ওনার আহ্বান জানানো ঠিক হয়নি। আহ্বান জানানোর কোনো প্রয়োজন ছিল না, যার যার পার্টি তার তার ব্যাপার। তাছাড়া উনি আমাদের ২০ দলের বাইরে ছিলেন। আমাদের ২০ দলীয় জোট ঠিকই আছে। উনি আমাদের জোটের ২২ নম্বর দল ছিলেন।’

*বাংলাদেশ লেবার পার্টির চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান ইরান বলেন, ‘উনি আমাদের ২০ দলীয় জোটের ছিলেন না। আমরা আমাদের নীতি-আদর্শ নিয়ে রাজনীতি করি। বিএনপির সঙ্গে আমাদের জোট। আমরা বিএনপির সঙ্গে জোটে থাকব কি থাকব না এটা আমাদের বিষয়।’
ডেমোক্রেটিক লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইফুদ্দিন মনি বলেন, ‘উনি তো বিএনপিরই লোক, বিএনপিতেই আছেন। ওনার বাবা মশিউর রহমান যাদু মিয়া ভাসানী বি’লুপ্ত করে বিএনপিতে যোগ দিয়েছিলেন। দল বি’লুপ্তি ওনাদের স্ব’ভাব।’