প্রচ্ছদ শিক্ষাঙ্গন সেফুদাকে নিয়ে প্রশ্ন করায় চাকরি গেল শিক্ষকের

সেফুদাকে নিয়ে প্রশ্ন করায় চাকরি গেল শিক্ষকের

53
সেফুদাকে নিয়ে প্রশ্ন করায় চাকরি গেল শিক্ষকের

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পরিচিত নাম সেফুদাকে নিয়ে পরীক্ষার প্রশ্ন করায় চাকরি হারিয়েছেন রাজধানীর রাজউক উত্তরা মডেল কলেজের একজন শিক্ষক। গত সোমবার দশম শ্রেণির প্রাক-নির্বাচনী পরীক্ষায় ইসলাম শিক্ষা প্রশ্নপত্রে সিফাত উল্লাহ মজুমদার সেফিদাকে উল্লেখ করে একটি সৃজনশীল প্রশ্ন দেওয়া হয়েছিল। প্রশ্নপত্রটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে ব্যাপক সমালোচনার সৃষ্টি হয়। এরপর আজ বুধবার প্রশ্নপত্র প্রনয়নকারী শিক্ষককে অব্যাহতি দেওয়ার কথা জানায় স্কুল কর্তৃপক্ষ। তবে ওই শিক্ষকের নাম প্রকাশ করা হয়নি।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া প্রশ্নপত্রে দেখা গেছে, সেখানে প্রথম প্রশ্নটিই করা হয়েছে সেফুদাকে নিয়ে। প্রশ্নে বলা হয়েছে, অদ্ভুত এক ধরনের মানুষ সেফাতুল্লাহ সেফুদা। সোশ্যাল মিডিয়ায় সে বিভিন্ন ধরনের কুরূচিপূর্ণ মন্তব্য করে। তরুণদের উদ্দেশে সে বলেন, মদ খাবি মানুষ হবি। দেখ আমি আরও এক গ্লাস খাইলাম। তার কথার প্রতিবাদ করে একজন বিজ্ঞ আলেম বললেন, তার মধ্যে যদি ইমানের সর্ব প্রথম ও সর্বপ্রধান প্রভাব পরিলক্ষিত হতো, তাহলে সে হয়ে উঠত একজন আত্মসচেতন ও আত্মমর্যাদা এক ব্যক্তি।

এই উদ্দীপক থেকে পরীক্ষায় প্রশ্ন করা হয়েছে, আকাইদ কী? ইসলামের নাম ইসলাম রাখা হয়েছে কেন? বিজ্ঞ আলেমের বক্তব্যে যে বিষয়টি ফুটে উঠেছে, তা আমাদের জীবনে কী প্রভাব ফেলতে পারে তা ব্যাখ্যা করো। ‘ঘ’ নম্বর প্রশ্নে বলা হয়েছে, তরুণদের উদ্দেশে দেয়া সেফুদার বক্তব্য কীসের শামিল? এর ফলাফল বিশ্লেষণ করো।

উল্লেখ্য, দেশের যেকোনো সাম্প্রতিক বিষয় নিয়ে ফেসবুক লাইভে এসে নানা অসংগতিপূর্ণ এবং অশ্লীল মন্তব্য করে রাতারাতি তারকাখ্যাতি পেয়ে গেছেন সেফুদা। বিভিন্ন বিতর্কিত মন্তব্যের কারণে অনেকে তার শাস্তিরও দাবি জানিয়েছে।

 সম্পাদক/এসটি