প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয় জাফরুল্লাহ বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগের কথা উচ্চারণ করার সাহস হয় নি’

জাফরুল্লাহ বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগের কথা উচ্চারণ করার সাহস হয় নি’

3717
জাফরুল্লাহ বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগের কথা উচ্চারণ করার সাহস হয় নি’

গতকাল গণভবনে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর সংলাপ অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রায় সাড়ে তিন ঘন্টাব্যাপী এ সংলাপে বিএনপিসহ ঐক্য ফ্রন্টের ২১ নেতা উপস্থিত ছিলেন।

সেখানে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তাদের বিভিন্ন দাবি-দাওয়া নিয়ে কথা বলেছেন তাঁরা। কিন্তু সংলাপে কেউই প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগের বিষয়টি উত্থাপন করেননি।

শুধুমাত্র দলনেতা ড. কামাল হোসেন সূচনা বক্তব্যে ৭ দফা দাবি প্রসঙ্গে বলেছেন নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের কথা। তবে প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগের বিষয়ে তিনি কোন কথা বলেননি। এমনকি সেখানে বিএনপির যে নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন তাঁরাও এ বিষয়টি উত্থাপন করেননি।

সংলাপে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যরিস্টার মওদুদ আহমদ। তিনি তাঁর বক্তব্যে বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির প্রসঙ্গটি উত্থাপন করেছিলেন।

বিএনপির আরেক নেতা ড. আবদুল মঈন খান তাঁর বক্তব্যে একটি অবাধ, সুষ্ঠু নির্বাচনের পরিবেশ সৃষ্টির জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে অনুরোধ জানিয়েছিলেন।

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর তাঁর বক্তব্যে বলেন, নির্বাচনের লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড করতে হবে। বিরোধী দলের ওপর মামলা, হামলা প্রত্যাহার করতে হবে। সভা-সমাবেশ করার অনুমতি দিতে হবে। তবে কেউই প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি করেন নি।

যদিও সংলাপের বাইরে বিভিন্ন সভা-সমাবেশে সবসময়ই প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ এবং নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনের কথা বলে আসছিলেন।

তবে ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিত্ব এবং প্রধানমন্ত্রী যেভাবে আমাদের আপ্যায়ন করেছেন, যেভাবে তিনি একটি অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের আগ্রহ প্রকাশ করেছেন, সে কারণে তাঁর সামনে এ ধরনের কথা উচ্চারণ করার সাহস উপস্থিত কারোরই হয় নি।’

সম্পাদক/এসটি